ফেসবুকে ‘হাহা রিঅ্যাক্ট’ দেওয়ায় যুবককে পিটিয়ে হাসপাতালে!

অনেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অন্যের পোস্টে প্রতিক্রিয়া জানায়। বিশেষ করে বন্ধুর ছবিতে ‘হাহা’ দেওয়া নিত্যদিনের ঘটনা। কিন্তু এবার সেই ‘হাহাহা’ নিয়ে বিপাকে পড়েছেন এক যুবক। প্রতিবেশীর হাতে প্রচণ্ড মার খেয়ে হাসপাতালে ভর্তি হতে হয় তাকে।

ঘটনাটি ঘটেছে পশ্চিমবঙ্গের উত্তর ২৪ পরগনার কামারহাটি এলাকায়। ধৃতের নাম ওমপ্রকাশ ঠাকুর। হিন্দুস্তান টাইমসের খবর।জানা গেছে, ৯ ডিসেম্বর একই এলাকার জয়ন্ত সিং নামে এক ব্যক্তির ফেসবুক পোস্টে ‘হাহাহা প্রতিক্রিয়া’ দিয়েছিলেন ওমপ্রকাশ। এতে খুব রেগে যায় জয়ন্ত।

ওম প্রকাশ পেশায় একজন নাইট গার্ড। ওম প্রকাশের অভিযোগ, রবিবার রাতে কাজে যাওয়ার সময় আড়িয়াদহের পথবাড়ি লাইন এলাকায় জয়ন্তের দল তাঁকে মারধর করে। পরে আহত অবস্থায় ওম প্রকাশকে কামারহাটির সাগর দত্ত মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার ডান চোখের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

এই ঘটনায় ক্ষুব্ধ ওমপ্রকাশের স্বজনরা। তারা বেলঘরিয়া থানায় গিয়ে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেন। তবে এখন পর্যন্ত কাউকে গ্রেফতার করা হয়নি। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্তরা এলাকার বাইরে রয়েছে। পুলিশ তদন্ত করছে।

অনেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অন্যের পোস্টে প্রতিক্রিয়া জানায়। বিশেষ করে বন্ধুর ছবিতে ‘হাহা’ দেওয়া নিত্যদিনের ঘটনা। কিন্তু এবার সেই ‘হাহাহা’ নিয়ে বিপাকে পড়েছেন এক যুবক। প্রতিবেশীর হাতে প্রচণ্ড মার খেয়ে হাসপাতালে ভর্তি হতে হয় তাকে।

ঘটনাটি ঘটেছে পশ্চিমবঙ্গের উত্তর ২৪ পরগনার কামারহাটি এলাকায়। ধৃতের নাম ওমপ্রকাশ ঠাকুর। হিন্দুস্তান টাইমসের খবর।জানা গেছে, ৯ ডিসেম্বর একই এলাকার জয়ন্ত সিং নামে এক ব্যক্তির ফেসবুক পোস্টে ‘হাহাহা প্রতিক্রিয়া’ দিয়েছিলেন ওমপ্রকাশ। এতে খুব রেগে যায় জয়ন্ত।

ওম প্রকাশ পেশায় একজন নাইট গার্ড। ওম প্রকাশের অভিযোগ, রবিবার রাতে কাজে যাওয়ার সময় আড়িয়াদহের পথবাড়ি লাইন এলাকায় জয়ন্তের দল তাঁকে মারধর করে। পরে আহত অবস্থায় ওম প্রকাশকে কামারহাটির সাগর দত্ত মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার ডান চোখের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

এই ঘটনায় ক্ষুব্ধ ওমপ্রকাশের স্বজনরা। তারা বেলঘরিয়া থানায় গিয়ে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেন। তবে এখন পর্যন্ত কাউকে গ্রেফতার করা হয়নি। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্তরা এলাকার বাইরে রয়েছে। পুলিশ তদন্ত করছে।

অনেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অন্যের পোস্টে প্রতিক্রিয়া জানায়। বিশেষ করে বন্ধুর ছবিতে ‘হাহা’ দেওয়া নিত্যদিনের ঘটনা। কিন্তু এবার সেই ‘হাহাহা’ নিয়ে বিপাকে পড়েছেন এক যুবক। প্রতিবেশীর হাতে প্রচণ্ড মার খেয়ে হাসপাতালে ভর্তি হতে হয় তাকে।

ঘটনাটি ঘটেছে পশ্চিমবঙ্গের উত্তর ২৪ পরগনার কামারহাটি এলাকায়। ধৃতের নাম ওমপ্রকাশ ঠাকুর। হিন্দুস্তান টাইমসের খবর।জানা গেছে, ৯ ডিসেম্বর একই এলাকার জয়ন্ত সিং নামে এক ব্যক্তির ফেসবুক পোস্টে ‘হাহাহা প্রতিক্রিয়া’ দিয়েছিলেন ওমপ্রকাশ। এতে খুব রেগে যায় জয়ন্ত।

ওম প্রকাশ পেশায় একজন নাইট গার্ড। ওম প্রকাশের অভিযোগ, রবিবার রাতে কাজে যাওয়ার সময় আড়িয়াদহের পথবাড়ি লাইন এলাকায় জয়ন্তের দল তাঁকে মারধর করে। পরে আহত অবস্থায় ওম প্রকাশকে কামারহাটির সাগর দত্ত মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার ডান চোখের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

এই ঘটনায় ক্ষুব্ধ ওমপ্রকাশের স্বজনরা। তারা বেলঘরিয়া থানায় গিয়ে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেন। তবে এখন পর্যন্ত কাউকে গ্রেফতার করা হয়নি। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্তরা এলাকার বাইরে রয়েছে। পুলিশ তদন্ত করছে।

About admin

Check Also

চলন্ত মাছকে ছুতেই মা,রা গেল কুমির। ভিডিও তুমুল ভাইরাল । (দেখুন ভিডিও)

কুমির, অ্যালিগেটর ও ঘড়িয়ালরা সাধারণ দৃ’ষ্টিতে একই রমক দেখতে হলেও,জীববিজ্ঞানের দৃ’ষ্টিতে এরা পৃথক বর্গের অ’ন্তর্গত। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *