প্রতি শুক্রবার এই শিশুর শরীরে পবিত্র কোরআন বা হাদিসের একেকটা বানী লেখা ভেসে ওঠে!

উত্তর রাশিয়ার দাগিস্তানে এক মুসলিম প’রিবারে জ’ন্ম নেয় শি’শু আলিয়া ইয়াকুব। প্রতি শু’ক্রবার তার শ’রীরের বিভিন্ন স্থানে ত্ব’কের নীচেজমাট র’ক্তের মতো হরফে পবিত্র কো’রআন বা হাদিসের একেকটা বানী লেখা ভেসে ওঠে।এর স্থিরচিত্র বিভিন্ন মানুষ তুলে রা’খেন। বা’ড়িতে একটি অ্যালবামের প্রদ’র্শনী খোলা হয়েছে।

মধ্যপ্রাচ্যের একটি টেলিভিশন শি’শুটির মায়ের সাক্ষাৎকার নেয়। শি’শুটির মা টে’লিভিশনটিতে বলেন, ‘যে সময় তার দে’হে আয়াত বা হা’দিস ভেসে ওঠে এর আগে তার অনেক জ্বর আ’সে।

সে সময় সে প্রচ’ণ্ড কান্না ক’রতে থাকে।
এরপর লেখাগুলো ভেসে উঠলে জ্ব’র কমে এবং কান্না থেমে যায়। দুধ পান করার স:ময়ও সে খুব শান্ত থাকে। ভিডিওটিতে শি’শুটির নানা অ’ঙ্গে আ’য়াত ও হাদিসের কিছু চিত্র দেখা যাবে।

কিছু স্থিরচিত্র প্রদ’র্শনের জ’ন্য রাখা হয়েছে। বি’শেষজ্ঞরা বলেছেন, ‘এটি আল্লাহর কুদরত ও ম’হানবী স-এর মুজিযা। যে কোনও কারণে আল্লাহ তা তা’র বান্দা অথবা প্রকৃতির মধ্যে প্র’কাশ ক’রে থা’কেন।

যাতে মানুষ শিক্ষা গ্রহণ ও ঈমান মজবুত ক’রতে পারে।’ অনেকে বলছেন, ‘এটি ইমাম মাহাদির আগমনের অন্যতম নমুনা। কি:য়ামতের নিদ’র্শনও হতে পারে এটি। শি’শুটির পে’টে ‘আ’ল্লাহ’ গ’লায়, পায়ে, ঘাড়ে, পিঠে ও কানে আল্লাহর নাম।

পা থেকে উরু হয়ে কোমর পর্যন্ত লম্বা লেখাটি হচ্ছে একটি হাদিসের বানী। যার অর্থ, আ’মি যা জানি তা যদি তোম’রা জানতে তাহলে হাসতে কম কাঁ’দতে বেশি।’টিভিতে বলা হয়, প্র’তিদিন আ’লিয়া ই’য়াকুবদের বাড়িতে গড়ে ২ হাজার লোক বিস্ময়কর এ ঘ’টনা দে’খতে আসেন।

সে সময় সে প্রচ’ণ্ড কান্না ক’রতে থাকে।
এরপর লেখাগুলো ভেসে উঠলে জ্ব’র কমে এবং কান্না থেমে যায়। দুধ পান করার স:ময়ও সে খুব শান্ত থাকে। ভিডিওটিতে শি’শুটির নানা অ’ঙ্গে আ’য়াত ও হাদিসের কিছু চিত্র দেখা যাবে।

কিছু স্থিরচিত্র প্রদ’র্শনের জ’ন্য রাখা হয়েছে। বি’শেষজ্ঞরা বলেছেন, ‘এটি আল্লাহর কুদরত ও ম’হানবী স-এর মুজিযা। যে কোনও কারণে আল্লাহ তা তা’র বান্দা অথবা প্রকৃতির মধ্যে প্র’কাশ ক’রে থা’কেন।

যাতে মানুষ শিক্ষা গ্রহণ ও ঈমান মজবুত ক’রতে পারে।’ অনেকে বলছেন, ‘এটি ইমাম মাহাদির আগমনের অন্যতম নমুনা। কি:য়ামতের নিদ’র্শনও হতে পারে এটি। শি’শুটির পে’টে ‘আ’ল্লাহ’ গ’লায়, পায়ে, ঘাড়ে, পিঠে ও কানে আল্লাহর নাম।

পা থেকে উরু হয়ে কোমর পর্যন্ত লম্বা লেখাটি হচ্ছে একটি হাদিসের বানী। যার অর্থ, আ’মি যা জানি তা যদি তোম’রা জানতে তাহলে হাসতে কম কাঁ’দতে বেশি।’টিভিতে বলা হয়, প্র’তিদিন আ’লিয়া ই’য়াকুবদের বাড়িতে গড়ে ২ হাজার লোক বিস্ময়কর এ ঘ’টনা দে’খতে আসেন।

About admin

Check Also

বিশ্বখ্যাত কেমব্রিজ ইউনিভার্সিটিতে শিক্ষক হিসেবে যোগ দিলেন ডা. তাসনিম জারা!

কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্লিনিক্যাল সুপাইরভাইজার (আন্ডারগ্রাজুয়েট) হিসেবে যোগ দিয়েছেন বাংলাদেশের চিকিৎসক ডা. তাসনিম জারা।= গত সোমবার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *