৬২ বছর বয়সে হলো প্রেম, অতঃপর বিয়ে (ভিডিও)

বরিশালের বানারীপাড়া উপ’জেলার চাখার ইউ’নিয়নের সোনাহার গ্রামের জননেত্রী শেখ হাসিনা আ’শ্রয়ণ প্রকল্পের বাসি’ন্দা আশরাফ আলী ব্যাপারি (৬২) বিয়ে করেননি। সংসারও নে’ই। একাই কাটিয়ে দিচ্ছি’লেন জীবনটা। কে জানতো এই বয়সে তিনি প্রে’মে পড়বেন, আর সেই প্রে’ম গড়াবে বিয়েতে। কিন্তু হয়েছে তো তাই।

প্রায় প্রবীণ বয়সে এসে তিনি একই আশ্র’য়ণ প্রকল্পের বাসি’ন্দা মোসাম্মৎ বানু বেগমকে (৫৪) বিয়ে সং’সারি হলেন। বানু বেগ’মের স্বামী মারা যাওয়ার পর মেয়ে ও মেয়ে জামাইয়ের স’ঙ্গে থাকলেও তিনি’ও অনেকটা নিঃসঙ্গ জীবন কাটাতেন । একপর্যায়ে আশ_রাফ ও বানু বেগ’মের মধ্যে গড়ে ওঠে প্রেমের সম্পর্ক

অবশেষে পরিবারের সম্মতিতে শনি’বার রাতে ঘটা ক’রেই তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়। বিয়ে দেখতে আশ্রয়’ণের এবং আশপা’শের কয়েকশ’ বাসিন্দা হাজির হয়েছিলেন বিয়ে বাড়িতে। আ’শরাফ ও বানু বেগ’মের এই বিয়ে নিয়ে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে গোটা চাখার ইউ’নিয়নে। বিয়েতে এ’ক লাখ এক টাকা

দেনমোহর ধার্য করা হয়। পরে নগ’দ ৫০ হাজার টা’কা পরিশোধিত দেনমোহরে বিয়ে সম্পন্ন হয়। এই দুই বৃ’দ্ধ-বৃদ্ধার বিয়েতে আশ্র’য়ণের সবাই খুশি। চাখার ইউনিয়ন পরিষদের (ইউ_পি) চেয়ার’ম্যান মজিবুল হক টুকু জানান, রাত ৮টায় বেশ আনন্দ করে’ই তাদের বিয়ে স’ম্পন্ন হয়েছে । এলাকাবাসী নবদম্পতির দী_র্ঘায়ু কামনা করে দো’য়া করেন।

এ দিকে বিয়ের পর আশরাফ আ’লী ব্যাপারি স্থানীয় সাংবাদিক’দের বলেন, ‘মোর এলহা (একলা) থাকতে খুব ক’স্ট হইতো, সময় ম’তো খাওয়া দাওয়া করতে পারতাম না। মনের মধ্যে ক’স্ট হইত, এহন আর কোন অসু’বিদা হইবে না।’ বানু বেগম বলেন, ‘মু’ই একটা ভরসা পাইলাম, দো’য়া চাই হক্কলের।’

বরিশালের বানারীপাড়া উপ’জেলার চাখার ইউ’নিয়নের সোনাহার গ্রামের জননেত্রী শেখ হাসিনা আ’শ্রয়ণ প্রকল্পের বাসি’ন্দা আশরাফ আলী ব্যাপারি (৬২) বিয়ে করেননি। সংসারও নে’ই। একাই কাটিয়ে দিচ্ছি’লেন জীবনটা। কে জানতো এই বয়সে তিনি প্রে’মে পড়বেন, আর সেই প্রে’ম গড়াবে বিয়েতে। কিন্তু হয়েছে তো তাই।

প্রায় প্রবীণ বয়সে এসে তিনি একই আশ্র’য়ণ প্রকল্পের বাসি’ন্দা মোসাম্মৎ বানু বেগমকে (৫৪) বিয়ে সং’সারি হলেন। বানু বেগ’মের স্বামী মারা যাওয়ার পর মেয়ে ও মেয়ে জামাইয়ের স’ঙ্গে থাকলেও তিনি’ও অনেকটা নিঃসঙ্গ জীবন কাটাতেন । একপর্যায়ে আশ_রাফ ও বানু বেগ’মের মধ্যে গড়ে ওঠে প্রেমের সম্পর্ক

অবশেষে পরিবারের সম্মতিতে শনি’বার রাতে ঘটা ক’রেই তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়। বিয়ে দেখতে আশ্রয়’ণের এবং আশপা’শের কয়েকশ’ বাসিন্দা হাজির হয়েছিলেন বিয়ে বাড়িতে। আ’শরাফ ও বানু বেগ’মের এই বিয়ে নিয়ে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে গোটা চাখার ইউ’নিয়নে। বিয়েতে এ’ক লাখ এক টাকা

দেনমোহর ধার্য করা হয়। পরে নগ’দ ৫০ হাজার টা’কা পরিশোধিত দেনমোহরে বিয়ে সম্পন্ন হয়। এই দুই বৃ’দ্ধ-বৃদ্ধার বিয়েতে আশ্র’য়ণের সবাই খুশি। চাখার ইউনিয়ন পরিষদের (ইউ_পি) চেয়ার’ম্যান মজিবুল হক টুকু জানান, রাত ৮টায় বেশ আনন্দ করে’ই তাদের বিয়ে স’ম্পন্ন হয়েছে । এলাকাবাসী নবদম্পতির দী_র্ঘায়ু কামনা করে দো’য়া করেন।

এ দিকে বিয়ের পর আশরাফ আ’লী ব্যাপারি স্থানীয় সাংবাদিক’দের বলেন, ‘মোর এলহা (একলা) থাকতে খুব ক’স্ট হইতো, সময় ম’তো খাওয়া দাওয়া করতে পারতাম না। মনের মধ্যে ক’স্ট হইত, এহন আর কোন অসু’বিদা হইবে না।’ বানু বেগম বলেন, ‘মু’ই একটা ভরসা পাইলাম, দো’য়া চাই হক্কলের।’
সূত্র: সমকাল।

About admin

Check Also

৫ লাখ টাকার সাথে পালসার বাইক চেয়েছিল মামুন, অশান্তিতে ছিলেন খায়রুন নাহার

নাটোরের গুরুদাসপুরে শিক্ষিকা খায়রুন নাহার নাসরিনের (৪০) ঝুল’ন্ত ম’রদে’হ উ’দ্ধা’রের ঘটনায় স্বামী মামুনের দা’য় দেখছেন …

Leave a Reply

Your email address will not be published.