আমাকে নিয়ে মানুষ যতই হিংসে করুক, আমি গন্তব্যে পৌঁছে গেছি: হিরো আলম

দেশের আলোচিত ও সমালোচিত ছেলে আশরাফুল হোসেন আলম ওরফে হিরো আলম। সোশ্যাল মিডিয়ায় মিউজিক ভিডিওর মাধ্যমে সবার কাছে পরিচিত তিনি। অভিনয়, গান, প্রযোজনা,

স্টেজ শো’সহ সব মাধ্যমেই ব্যস্ত সময় পার করছেন তিনি। সম্প্রতি বিকৃতভাবে গান গাওয়ার অভিযোগে হিরো আলমকে ডাকে ডিএমপির সাইবার অ্যান্ড স্পেশাল ক্রাইম বিভাগ। সেখানে তাকে নানা বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

এরপর থেকেই নতুন করে আলোচনায় উঠে আসে তার নাম। কিন্তু হঠাৎ করেই আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছেন হিরো আলম। একে একে আরব নিউজ, খালিজ টাইমস, ফ্রান টোয়েন্টিফোর, এএফপি, বিবিসি ওয়ার্ল্ড গুরুত্বের সঙ্গে সংবাদ প্রচার করে।

এদিকে বিবিসি বাংলা বিভাগ হিরো আলমকে নিয়ে একটি সংবাদ প্রকাশ করে। সেটি বিবিসি ওয়ার্ল্ড টেলিভিশনে ইংরেজি বিবরণসহ সংবাদ প্রচারিত হয়। যেখানে হিরো আলমের একাধিক গানের অংশও দেখানো হয়।

আজ শুক্রবার ৫ আগস্ট বিকেলে হিরো আলম বলেন, দেশের মিডিয়ার পাশাপাশি বিদেশি মিডিয়াগুলো তার সঙ্গে যোগাযোগ করছে। সম্প্রতি আমার সঙ্গে ঘটে যাওয়া সব বিষয়ে তারা জানতে চাচ্ছে। আমার সঙ্গে যা ঘটছে, আমি তাই বলেছি। আমি আসলে ভাইরাল হতে চাই না, শান্তিতে থাকতে চাই।

তিনি আরও জানান, আমাকে নিয়ে মানুষ যতোই হিংসা করুক না কেন, আমি আমার গন্তব্যে ঠিকই পৌঁছে গেছি। বিশ্বের বেশ কয়েকটি গণমাধ্যমে হেড লাইন এখন আমি হিরো আলম। আমি যদি বাংলাদেশের নিম্ন শ্রেণির জনগণ হতাম তাহলে বিদেশি গণমাধ্যম আমাকে নিয়ে নিউজ করত না। আমাকে নিয়ে যারা হিংসা করে তাদের বোঝা উচিত হিরো আলমের জনপ্রিয়তা কত বেশি।

দেশের আলোচিত ও সমালোচিত ছেলে আশরাফুল হোসেন আলম ওরফে হিরো আলম। সোশ্যাল মিডিয়ায় মিউজিক ভিডিওর মাধ্যমে সবার কাছে পরিচিত তিনি। অভিনয়, গান, প্রযোজনা,

স্টেজ শো’সহ সব মাধ্যমেই ব্যস্ত সময় পার করছেন তিনি। সম্প্রতি বিকৃতভাবে গান গাওয়ার অভিযোগে হিরো আলমকে ডাকে ডিএমপির সাইবার অ্যান্ড স্পেশাল ক্রাইম বিভাগ। সেখানে তাকে নানা বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

এরপর থেকেই নতুন করে আলোচনায় উঠে আসে তার নাম। কিন্তু হঠাৎ করেই আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছেন হিরো আলম। একে একে আরব নিউজ, খালিজ টাইমস, ফ্রান টোয়েন্টিফোর, এএফপি, বিবিসি ওয়ার্ল্ড গুরুত্বের সঙ্গে সংবাদ প্রচার করে।

এদিকে বিবিসি বাংলা বিভাগ হিরো আলমকে নিয়ে একটি সংবাদ প্রকাশ করে। সেটি বিবিসি ওয়ার্ল্ড টেলিভিশনে ইংরেজি বিবরণসহ সংবাদ প্রচারিত হয়। যেখানে হিরো আলমের একাধিক গানের অংশও দেখানো হয়।

আজ শুক্রবার ৫ আগস্ট বিকেলে হিরো আলম বলেন, দেশের মিডিয়ার পাশাপাশি বিদেশি মিডিয়াগুলো তার সঙ্গে যোগাযোগ করছে। সম্প্রতি আমার সঙ্গে ঘটে যাওয়া সব বিষয়ে তারা জানতে চাচ্ছে। আমার সঙ্গে যা ঘটছে, আমি তাই বলেছি। আমি আসলে ভাইরাল হতে চাই না, শান্তিতে থাকতে চাই।

তিনি আরও জানান, আমাকে নিয়ে মানুষ যতোই হিংসা করুক না কেন, আমি আমার গন্তব্যে ঠিকই পৌঁছে গেছি। বিশ্বের বেশ কয়েকটি গণমাধ্যমে হেড লাইন এখন আমি হিরো আলম। আমি যদি বাংলাদেশের নিম্ন শ্রেণির জনগণ হতাম তাহলে বিদেশি গণমাধ্যম আমাকে নিয়ে নিউজ করত না। আমাকে নিয়ে যারা হিংসা করে তাদের বোঝা উচিত হিরো আলমের জনপ্রিয়তা কত বেশি।

About admin

Check Also

স্বল্প পোশাকে গাড়ির ভেতর উদ্দাম নাচ নেহা কক্করের, নিমেষে ভাইরাল ভিডিও

প্রথম পাতায় নেহা কক্কর থাকবেননা তা কি কখনো হয়? এমনিতেই অতিমারির মধ্যে বেশ জাঁকজমকপূর্ণ ভাবে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.